আজ ৩ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ১৭ জুন ২০১৯ ইংরেজী , সোমবার

ফ্রিল্যান্সিং এ নতুনদের জন্য কিছু টিপস এবং সাবধানতা

মোঃ আনিসুর রহমান ভূঁইয়া আগস্ট ২, ২০১৪

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহীম। সবাইকে সালাম ও শুভেচ্ছা জানিয়ে শুরু করছি আমার আজকের পোস্ট। গত পর্বে ফ্রীল্যান্সিং এর উপর আপনাদের কিছু ধারণা দেয়ার চেষ্টা করেছিলাম। আজ আলোচনা করব এ ব্যাপারে আমাদের কি কি সাবধানতা অবলম্বন করা উচিত। চলুন তবে মূল আলোচনায় ফিরে যাই।

ফ্রিল্যান্সিং এর জন্য প্রস্তুতিঃ

আপনি যদি ফ্রিল্যান্সিং এ আগ্রহী হন তবে এর জন্য নিজেকে অবশ্যই প্রস্তুত করে নিয়েই আপনাকে কাজে নামতে হবে কেননা, এটি একটি বিশ্ব বাজার যেখানে নিজ যোগ্যতায় আপনাকে কাজ যোগার করে নিতে হবে। এছাড়াও এখানে প্রচুর কাজের বিপরীতে প্রচুর ফ্রিল্যান্সার আপনার প্রতিদ্বন্দ্বী। তাই অবশ্যই নিজেকে এর জন্য প্রস্তুত করে নিতে হবে। আপনি যেই কাজটি ভালো পারেন সেটির উপরেই আপনার দক্ষতা বাড়াতে থাকুন, সেই সাথে অন্যান্য কাজগুলোও শিখে আপনার প্রোফাইল উন্নত করে তুলুন এতে করে আপনার কাজ পাওয়ার সম্ভাবনা বাড়বে। সংক্ষেপে ফ্রিল্যান্সিং এর প্রস্তুতিগুলো হল নিম্নরূপঃ

# দক্ষতা দক্ষতা এবং দক্ষতা

# ধৈর্য ও আত্মবিশ্বাস

# পরিশ্রম করার মানসিকতা

# নিত্যনতুন কাজ শেখা

# সততা ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করার মানসিকতা

# অলসতা পরিহার করা

উপরোক্ত বিষয়ের উপর নির্ধারন করেই আপনি নিজেকে প্রস্তুত করে নিতে পারেন।

ফ্রিল্যান্সিং এর জন্য এবার আপনি মানসিকভাবে প্রস্তুত এবার আপনি মার্কেটপ্লেসে নিবন্ধন করে নিন এবং কাজের ধরন বেছে নিয়ে একটি রেডিনেস টেস্ট দিয়ে নিজের যোগ্যতা যাচাই করুন। এরপর আপনি আপনার পছন্দের কাজের জন্য বিড করার সুযোগ পাবেন। কাজ পাওয়ার পর নিন্মোক্ত বিষয়ে অবশ্যই খেয়াল রাখার চেষ্টা করবেন।

# বায়ার থেকে অবশ্যই কাজের জন্য প্রয়োজনীয় তথ্য ভালোভাবে জেনে নিন। এক্ষেত্রে এমন কোন প্রশ্ন করা থেকে বিরত থাকুন যা আপনার দক্ষতা সম্পর্কে ক্লায়েন্ট এর মনে সন্দেহের সৃষ্টি করতে পারে।

# বায়ার থেকে কাজ নেয়ার পর যত দ্রুত সম্ভব তা বাস্তবায়নের চেষ্টা করুন। সময় আছে পড়ে করব ভেবে বসে থাকলে ক্ষতিটা আপনারই হবে। কেননা আপনি কাজটি যত দ্রুত শেষ করতে পারবেন আপনার পরবর্তী কাজ পাওয়ার সম্ভাবনা ততই দ্রুততর হবে।

# কাজের সময় বায়ারের সাথে কখনোই বাজে ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। ক্লায়েন্ট যদি বেশি সমস্যা করে তবে সেটি নিয়ে তাঁর সাথে অহেতুক তর্ক না করে সরাসরি সাইট কর্তৃপক্ষকে জানান।

# কাজ শেষে সুন্দরভাবে কাজটি বায়ারের কাছে উপস্থাপনের চেষ্টা করুন।

আশা করি এই টিপসগুলো আপনার আগামী ফ্রিল্যান্সিং জীবনের জন্য সহায়ক হবে ইনশা আল্লাহ্‌।

যেতে যেতে কিছু সাবধানতার কথা বলা জরুরী বলে মনে করছি। সেগুলো হলঃ

# ঝোঁকের কবলে পড়ে কখনোই ফ্রিল্যান্সিং এ যোগদান করবেন না।

# ক্লিক করে আয় করা কখনোই ফ্রিল্যান্সিং এর পর্যায়ে পড়েনা। তাই এর থেকে দূরে থাকাই মঙ্গল।

# অন্যকে দেখে কখনোই এ পেশায় আশা ঠিকনা। ভালোভাবে জেনে বুঝে না আসলে ২য় দিনেই আপনাকে হতাশ হয়ে বাড়ি ফিরতে হবে।

# ব্যক্তিগত লোভকে সংবরণ করা উচিত।

# অলস লোকের জন্য ফ্রিল্যান্সিং নয়।

# তাড়াহুড়ো করে সফল হওয়ার চেষ্টা করা উচিত নয়। মনে রাখবেন আজ যাদের কে সফল হিসেবে দেখছেন তাঁদেরও আজকের দিনটিতে পৌঁছুতে অনেক সময় লেগেছে। তাই তাড়াহুড়ো নয়।

# কোন কিছু ২ দিনে শিখেই ৩য় দিনে কাজের জন্য বিড করার মত বোকামী করবেন না বরং কাজটি পাকাপোক্তভাবে অনুশীলন করার পরেই বিড করার চেষ্টা করুন।

সাবধানতা অবলম্বন করে ফ্রিল্যান্সিং করলে সফলতা কেউই ঠেকিয়ে রাখতে পারবেনা। তাই এ ব্যাপারে যথেষ্ট সাবধানতা অবলম্বনের চেষ্টা করুন। আশা করি আমরা সকলেই সফলতার সাথে ফ্রিল্যান্সিং করে নিজের ও দেশের উন্নয়নে অংশগ্রহন করতে সক্ষম হব ইনশা আল্লাহ্‌। সকলে ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন সেই কামনায় আজকের মত বিদায়।

ধন্যবাদ সাথে থাকার জন্য –
মোঃ আনিসুর রহমান ভূঁইয়া
০২.০৮.২০১৪

আপনি আরও পড়তে পারেনঃ

logo

টেকপ্রিয়.নেট

সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত, বিনা অনুমতিতে কোন লেখকের লেখা কপি না করার অনুরোধ জানানো যাচ্ছে
তবে সুত্র উল্লেখ সাপেক্ষে লেখা শেয়ার করতে পারেন। ধন্যবাদ।

যোগাযোগ

সাইট সম্পর্কে তথ্য, জিজ্ঞাসা, অভিযোগ ও অনুরোধ এর জন্য যোগাযোগ করুন

মোবাইল: ০১৭১৯২৫৯০৪৬